অভিনেত্রী মমতা কুলকার্নির ব্যক্তিগত জীবন, অভিনয় এবং বর্তমান অবস্থা

Mamata Kulkarni
Picture source : Social media.


অভিনেত্রী মমতা কুলকার্নি


মমতা কুলকার্নি যিনি ছিলেন বলিউডের লাস্যময়ী অভিনেত্রী তথা কিংবদন্তী অভিনেত্রীদের মধ্যে একজন। হঠাৎ তিনি কেন অভিনয়ের এত সুন্দর ক্যারিয়ার ত্যাগ করলেন। 

কেন তিনি যোগীর জীবন যাপন করছেন। তার বর্তমান পরিস্থিতি এবং অবস্থান কি ও কোথায়?

আপনি কি একজন মমতা কুলকার্নির ফ্যান? তবে জেনে নিন কি কি ঘটনা ঘটেছিল তার সাথে, যার জন্য তিনি এত সুন্দর ক্যারিয়ারকে টাটা বাই বাই বলেছেন।


মমতা কুলকার্নির ব্যক্তিগত জীবন :


মমতা কুলকার্নি 1972 সালের 20 এপ্রিল মুম্বাইতে জন্মগ্রহণ করেন। তার আরো দুজন বোন আছেন। তিনি একটি ইন্টারভিউ তে বলেছেন তার মা তাকে বলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে আসতে বলেছিলেন। 

তার ব্যক্তিগত কোনো ইচ্ছাই ছিলনা সিনেমা জগতে আসার জন্য। তিনি নাকি ছোট থেকেই সৈন্যাস জীবন পছন্দ করতেন। আধ্যাতিকতা তার জীবনের প্রিয় বিষয়। তার উচ্চতা 5 ফুট 2 ইঞ্চি। তার পছন্দের খাদ্য সি ফুড এবং পছন্দের নায়ক সালমান খান।


অভিনয় জীবন শুরু :


তার অভিনয় যাত্রা শুরু 1991 সালে একটি তামিল ফিল্ম এর হাত সাথে। সিনেমাটি করে তার প্রচুর জনপ্রিয়তা তৈরি হয়। তার ইন্টারভিউতে তিনি বলেন সেই সময় নাকি তার জনপ্রিয়তার কারণে ভক্তরা তার নাম ট্যাটু আকারে তাদের হাতে লিখতো। এতটাই জনপ্রিয়তার শিখরে পৌঁছে গিয়েছিলেন তিনি তার ডেবিউ ফিল্ম দিয়ে।


মমতা কুলকার্নির বলিউড যাত্রা শুরু : 


এরপর বলিউডের যাত্রা শুরু হয়। প্রথম বই 1992 সালে তিরাঙ্গা দিয়ে বলিউডে যাত্রা শুরু করেন। এরপরে একে একে তার সিনেমা জনপ্রিয় হতে থাকে এবং তিনি একজন প্রথম সারির নায়িকা হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হন।
মমতা কুলকার্নি ফিল্মফেয়ার অ্যাওয়ার্ড পান শ্রেষ্ঠ নবাগতা অভিনেত্রীর ছবি "আশিক আওয়ারা" তে অভিনয় করে। 

এছাড়াও আরো কিছু তার জনপ্রিয় ছায়াছবির মধ্যে ছায়াছবিগুলি হল ওয়াক্ত হামারা হ্যায়, কর্ণ অর্জুন, ক্রান্তিবীর, সবসে বড়া খিলাড়ি, চায়না গেট ইত্যাদি। 

তার অভিনয় জীবনের সর্বশেষ ছবি কাভি তুম কাভি হাম। এরপর তিনি বলিউড ত্যাগ করেন। তিনি হিন্দি ছাড়াও বিভিন্ন রিজিওনাল ছায়াছবিতেও অভিনয় করেছেন।





লাস্যময়ী অভিনেত্রী বিতর্কের শুরু :


1993 সালে মমতা কুলকার্নি একটি ম্যাগাজিনে ন্যুড ছবি প্রকাশ করেন। যেটার জন্য প্রচুর সমালোচনার মুখে পড়তে হয় তাকে। এমনকি মহিলা কমিশন পর্যন্ত তার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে কোর্টে।

শোনা যায় ঘাতক সিনেমার একটি গানের দৃশ্যে অভিনয় করার পর পরিচালক রাজকুমার সন্তোষীর সঙ্গে তার খুব ভালো সম্পর্ক সৃষ্টি হয়। এই কারণে রাজকুমার সন্তোষী তার পরবর্তী সিনেমা চায়না গেটে অভিনয়ের জন্য তাকে অফার করেন। কিন্তু এই চায়না গেট চলাকালীন সময় রাজকুমার সন্তোষীর সঙ্গে তাঁর বিবাদ হয় এবং তাদের সম্পর্ক ভেঙে যায়।

এরপর তার সম্পর্ক হয় টিনু ভার্মার সঙ্গে। টিনু বিবাহিত ছিলেন। তার দুই সন্তান ছিল। মমতা কুলকানি এবং টিনু ভার্মা দুজনে নাকি গোপনে বিয়ে করেন।


অপবাদ না অন্যায় ?


শোনা যায় মমতা কুলকার্নি ফিল্ম ছাড়াও বহু ইভেন্টে যোগদান করতেন। যেমন রাঁচির একটি ইভেন্টে যোগদান করেন এবং সেখানে মাত্রাতিরিক্ত পারিশ্রমিক পান যা কিনা একজন সিনেমা অভিনেত্রীর পারিশ্রমিকের থেকেও বেশি ছিল। প্রায় 1.25 কোটি টাকা।

1997 সালে দুবাইয়ের একটি ঝাঁ-চকচকে পার্টিতে ভিকি গোস্বামীর সাথে তার পরিচয় হয়। এই ভিকি গোস্বামী দুবাই পুলিশের হাতে ধরা পড়ে ড্রাগ ব্যবসার জন্য এবং তার 25 বছরের জেল হয়। শোনা যায় এই সময় মমতা ভিকি গোস্বামীর সমস্ত ব্যবসার দেখভাল করেছেন। এরপর তারা নাকি জেলে দুজনে বিয়ে করেছেন এবং ধর্ম পরিবর্তন করেছেন।

দুবাই জেল থেকে তাড়াতাড়ি ছাড় পেয়ে যান ভিকি গোস্বামী। এরপর তারা দুজনে কেনিয়াতে চলে যান। এই সময়ে সোশ্যাল মিডিয়াতে মমতার কিছু পোস্ট ভাইরাল হয়। সেখানে দেখা যায় তিনি যোগীর বেশে রয়েছেন। অর্থাৎ সন্ন্যাস বেশ ধারণ করেছেন।


বিশেষ ঘটনা :


2016 সালের একটি ঘটনা সবাইকে নাড়া দিয়ে যায়। মুম্বাইয়ের থানে তে একটি ড্রাগ পাচার চক্র ধরা পড়ে, তাতে মমতা কুলকার্নি এবং তার স্বামীর নাম জড়িয়ে যায়। এই চক্রটি নাকি প্রায় দুই হাজার কোটি টাকার ব্যবসা করেছিল। মুম্বাই পুলিশ তাদেরকে ধরার উদ্যোগ নেয়। 

এই সময়ে আবার একটি ভিডিও ভাইরাল হয় সেখানে দেখা যায় তিনি বলছেন যে তিনি একজন সন্ন্যাসী। তার এই ড্রাগ পাচার চক্র সম্পর্কে কোন ধারনাই নেই। 

.

আরো কিছু :


ভারতীয় টেলিভিশনের জনপ্রিয় শো বিগ বসের জন্য তিনি ডাক পেয়েছিলেন কিন্তু তিনি তা রিজেক্ট করে দেন। এছাড়াও তিনি সারা জীবনে বহু বিগ বাজেটের সিনেমার অফার পেয়েছেন যা তিনি রিজেক্ট করেছেন। 

এভাবেই তার জীবন ওঠানামার মধ্য দিয়ে চলেছে এবং তিনি একজন লাস্যময়ী অভিনেত্রী থেকে আজ যোগী সন্ন্যাসী হয়েছেন।

প্রিয় পাঠক, মমতা কুলকার্নির জীবন সম্পর্কে জানতে পেরে আপনার কি ধারণা জন্মেছে আমাদেরকে জানান। আপনার কি মনে হয় তার নিজের সম্পর্কে যা যা বলেছেন সেটা সম্পূর্ণ ঠিক? কমেন্ট লিখে জানিয়ে দিন।

এছাড়াও আমাদের ইউটিউব চ্যানেল মন জংশন এ ঘুরে আসতে পারেন আরো পুরাতনী তথ্য জানার জন্য, ধন্যবাদ।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

1 মন্তব্যসমূহ